সোমবার, ৩০ নভেম্বর ২০২০, ০১:২৬ অপরাহ্ন
Logo
সংবাদ শিরোনাম ::
যমুনা নদীর উপরে বঙ্গবন্ধু রেলওয়ে সেতুর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নিজস্ব বলয় তৈরি করতে মাই ম্যান দিয়ে কমিটি গঠন করা যাবে না : ওবায়দুল কাদের তথ্য সচিব কামরুন নাহারের বিদায়ী সভা অনুষ্ঠিত আরডিএ বিতর্ক কর্মশালা-২০২০॥শিক্ষার্থী রেজিস্ট্রেশন চলছে বাইডেনের বিজয় নিশ্চিত হলে হোয়াইট হাউস ছাড়বেন ট্রাম্প শীঘ্রই ভুয়া অনলাইনের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা : তথ্যমন্ত্রী আর্জেন্টাইন ফুটবল কিংবদন্তী দিয়াগো ম্যারাডোনা আর নেই শপথ নিলেন নতুন ধর্ম বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফরিদুল হক খান সংযুক্ত আরব আমিরাতের প্রধানমন্ত্রীর কাছে বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূতের পরিচয়পত্র পেশ জঙ্গি ও সন্ত্রাস প্রতিরোধে ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের প্রজ্ঞাপন

যুক্তরাষ্ট্রে অস্ট্রাজেনকা ও জে এন্ড জে’র ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল পুনরায় শুরু

  • আপডেট সময় রবিবার, ২৫ অক্টোবর, ২০২০

॥আন্তর্জাতিক ডেস্ক॥ যুক্তরাষ্ট্রে অস্ট্রাজেনকা এবং জনসন এন্ড জনসন তাদের ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়াল পুনরায় শুরুর ঘোষণা দিয়েছে।
গত শুক্রবার অস্ট্রাজেনকা এক ঘোষণায় বলেছে, টিকা গ্রহণকারী একজন অসুস্থ্য হয়ে পড়ায় ছয় সপ্তাহ আগে যুক্তরাষ্ট্রে ট্রায়াল বন্ধ করে দেয়া হয়। এখন দ্য ফুড এন্ড ড্রাগ এডমিনিস্ট্রেশন(এফডিএ) ট্রায়াল পুনরায় শুরুর অনুমোদন দিয়েছে।
গত ৬ই সেপ্টেম্বর বিশ্বজুড়েই ব্রিটিশ ঔষধ কোম্পানী অস্ট্রাজেনকা তাদের টিকার পরীক্ষা বন্ধ করে দিয়েছিল। কিন্তু পর পরই ব্রিটেন এবং এর পর দক্ষিণ আফ্রিকা, ব্রাজিল ও জাপানে পরীক্ষার কাজ পুনরায় শুরু করা হয়।
টিকা নেয়ার সঙ্গে অসুস্থতার কোন সম্পর্ক নেই এ বিষয়ে নিশ্চিত হওয়ার পরই টিকা পরীক্ষার কাজ পুনরায় শুরু করা হয়।
এদিকে কোম্পানীটি আশা করছে, চলতি বছরের শেষে তারা টিকা পরীক্ষার ফলাফল পাবে।
অস্ট্রাজেনকা ও অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি যৌথভাবে ভ্যাকসিনটি তৈরি করেছে এবং একে বিশে^র মধ্যে সবচেয়ে প্রতিশ্রুতিশীল ও উন্নত মনে করা হচ্ছে।
এদিকে অস্ট্রাজেনকার ঘোষণার পর পরই জনসন এন্ড জনসন বলেছে, তারা তাদের ভ্যাকসিনের পরীক্ষার কাজ পুনরায় শুরুর প্রস্তুতি নিয়েছে।
একজন স্বেচ্ছাসেবক অসুস্থ্য হয়ে পড়ায় গত সপ্তাহে তারা তাদের পরীক্ষা স্থগিত করেছিল।
এক বিবৃতিতে কোম্পানীটি বলেছে, সকল ধরণের মেডিক্যাল পর্যালোচনা শেষে ভ্যাকসিনের সাথে ওই স্বেচ্ছাসেবকের অসুস্থতার কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি।
গত শুক্রবারের এই ঘোষণার আগে যুক্তরাষ্ট্রে ভ্যাকসিন কার্যক্রমে জড়িত একজন শীর্ষ কর্মকর্তা বলেছেন, খুব শিগগীরই জনসন এন্ড জনসন তাদের পরীক্ষার কাজ পুনরায় শুরু করছে।
উল্লেখ্য, আমেরিকায় কোভিড-১৯ সংক্রমণে ২ লাখ ২৩ হাজারেরও বেশি লোক মারা গেছে। শিগগীরই দেশটিতে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।
এ প্রেক্ষিতে দেশটিতে স্বাস্থ্য সংকটের বিষয়টি সবচেয়ে বড় ধরণের নির্বাচনী ইস্যু।
দেশটির হেলথ এন্ড হিউম্যান সার্ভিস বিভাগের কর্মকর্তা পল ম্যাঙ্গো বলেছেন, চলতি বছর শেষ হওয়ার আগেই তারা অধিক ঝুঁকিপূর্ণ আমেরিকানদের টিকার আওতায় নিতে পারবেন। আর জানুয়ারির শেষ নাগাদ সকল সিনিয়র নাগরিক এবং মার্চ-এপ্রিল নাগাদ সকল আমেরিকানই টিকা পাবে বলে আশা করা হচ্ছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর
error: আপনি নিউজ চুরি করছেন, চুরি করতে পারবেন না !!!!!!