fbpx
রবিবার, ১৬ ফেব্রুয়ারী ২০২০, ০৩:৪৬ পূর্বাহ্ন
Logo
সংবাদ শিরোনাম ::
ভারতের মেদিনীপুরের উদ্দেশ্যে রাজবাড়ী স্টেশন থেকে ওরশ স্পেশাল ট্রেন ছেড়ে গেল মাটিপাড়া কাজী ছমির উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ে বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা-পুরস্কার বিতরণ রাজবাড়ীতে সমৃদ্ধির অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ শীর্ষক আলোচনা সভা ও চলচ্চিত্র প্রদর্শনী মুজিব বর্ষ উপলক্ষে স্বাড়ম্বরে জাতীয় আইনগত সহায়তা দিবস পালন হবে পাংশায় আ’লীগের কাউন্সিল ঘিরে তৎপর পদ প্রত্যাশীরা চীনে করোনা ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা দেড় হাজার ছাড়িয়েছে ডাঃ শেখ ইয়াহিয়া স্কুলে বার্ষিক ক্রীড়া-সাংস্কৃতিক প্রতিযোগিতা অলংকারপুর আদর্শ মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ক্রীড়া প্রতিযোগিতা-সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান প্রথম আলো রাজবাড়ী বন্ধুসভার পরিচিতি সভা-সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান পাংশায় আদি মহাশ্মশানে মহানাম যজ্ঞানুষ্ঠানে রাতদিন চলছে ভক্তদের মাঝে প্রসাদ বিতরণ

রাজবাড়ীতে অটিজম ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিশুদের ক্রীড়া উৎসব-পুরস্কার বিতরণ

  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

॥আসহাবুল ইয়ামিন রয়েন॥ ক্রীড়া পরিদপ্তরের বার্ষিক ক্রীড়া কর্মসূচীর আওতায় রাজবাড়ী জেলা ক্রীড়া অফিসের আয়োজনে গতকাল ১২ই ফেব্রুয়ারী বীর মুক্তিযোদ্ধা শহীদ খুশি রেলওয়ে ময়দানে অটিজম ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিশুদের ক্রীড়া উৎসব অনুষ্ঠিত হয়।
বেলা ১১টায় ক্রীড়া উৎসবের পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম।
সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ সাঈদুজ্জামান খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন জেলা ক্রীড়া অফিসার ফেরদৌসী আক্তার বন্যা।
এ সময় বিশেষ অতিথি হিসেবে জেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক রুবাইয়াত মোঃ ফেরদৌস, জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মোঃ সফিকুল ইসলাম সফি ও জেলা ফুটবল এসোসিয়েশনের(ডিএফএ) সভাপতি মঞ্জুরুল আলম দুলালসহ অন্যান্য অতিথিগণ, প্রতিবন্ধী স্কুলগুলোর শিক্ষক, ক্রীড়া উৎসবে অংশগ্রহণকারী অটিজম ও বুদ্ধি শিশু এবং তাদের অভিভাবকগণ উপস্থিত ছিলেন।
অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক দিলসাদ বেগম জাতির পিতার জন্মশতবার্ষিকীতে তার প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বলেন, জাতির পিতার স্বপ্ন ছিল এদেশের প্রতিটি মানুষ তার অধিকার নিয়ে সুন্দরভাবে জীবন-যাপন করবে। সেই লক্ষ্য নিয়ে তিনি কাজও শুরু করেছিলেন। অটিজম ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধীসহ সকলেই তাতে অন্তর্ভুক্ত ছিল। কিন্তু তিনি তার স্বপ্নকে বাস্তবায়ন করে যেতে পারেননি। এখন তার সুযোগ্য কন্যা হিসেবে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী দেশের প্রতিটি নাগরিক যাতে সকল সুযোগ-সুবিধা নিয়ে সুন্দরভাবে বসবাস করতে পারে সেই লক্ষ্য নিয়ে কাজ করে যাচ্ছেন। যারা অটিজম ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী তাদের জন্য ভাতাসহ বিভিন্ন সুবিধা প্রদানের মাধ্যমে তাদের সকল অধিকার প্রতিষ্ঠা করেছেন।
তিনি আরও বলেন, অটিজম ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিশুরা অন্যান্য শিশুদের থেকে আলাদা। অভিভাবকসহ যারা তাদের তত্বাবধানের দায়িত্বে থাকেন তাদেরকে এ সকল শিশুদের বিশেষভাবে পরিচর্যা করতে হয়। এ সকল শিশুরা যাতে কোন সুবিধা থেকে বঞ্চিত না হয় সেদিকে খেয়াল রেখে তাদের কল্যাণ সংশ্লিষ্ট সকলকে কাজ করতে হবে। তাহলে তারাও খেলাধুলাসহ বিভিন্ন ক্ষেত্রে দেশের জন্য সুনাম বয়ে আনতে পারবে।
আলোচনা পর্বের শেষে প্রধান অতিথিসহ অন্যান্য অতিথিগণ ক্রীড়া উৎসবে অংশগ্রহণকারী অটিজম ও বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিশুদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ করেন।
পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান শেষে জেলা প্রশাসক দিলশাদ বেগম প্রধান অতিথি হিসেবে ক্রীড়া পরিদপ্তরের বার্ষিক ক্রীড়া কর্মসূচীর আওতায় রাজবাড়ী সদর উপজেলার ৩০জন শিক্ষার্থীর(১৫ জন ছাত্র ও ১৫ জন ছাত্রী) ফুটবল প্রশিক্ষণ উদ্বোধন করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর
error: আপনি নিউজ চুরি করছেন, চুরি করতে পারবেন না !!!!!!