মঙ্গলবার, ২২ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১০:৩৫ অপরাহ্ন
Logo
সংবাদ শিরোনাম ::
পিএসসি’র নবনিযুক্ত চেয়ারম্যান সোহরাব হোসাইনের শপথ গ্রহণ শীতে করোনা পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে পারে, তাই প্রস্তুতি নিন : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যুক্তরাষ্ট্রে ১০ই অক্টোবর নাগাদ করোনায় মারা যেতে পারে ২লাখ ১৮হাজার লোক করোনার সংক্রমণ রোধে রাজবাড়ীতে ১৯৯৪ ব্যাচের উদ্যোগে মাস্ক বিতরণ বিশ্ব জুড়ে এক সপ্তাহে কোভিড-১৯ এ মৃত্যুর সংখ্যা অগ্রহণীয় ভাবে বেশি : বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা চট্টগ্রামের হাটহাজারীতে আল্লামা আহমদ শফী’র জানাযাতে লাখ লাখ মানুষের অংশগ্রহণ শ্রীলংকা সফরের জন্য প্রস্তুতি॥ক্রিকেটাদের করোনা পরীক্ষা শুরু জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে অংশ নিচ্ছেন না মার্কিন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প ‘সরকারের গৃহীত পদক্ষেপে পেঁয়াজের বাজারে দাম কমতে শুরু করেছে’ জাপানের নতুন প্রধানমন্ত্রীকে শেখ হাসিনার অভিনন্দন

হাইকোর্টের আইনজীবী হতে প্রিলিমিনারী পরীক্ষা দিতে হবে

  • আপডেট সময় বুধবার, ১ জানুয়ারী, ২০২০

॥স্টাফ রিপোর্টার॥ সুপ্রিম কোর্টের হাইকোর্ট বিভাগে আইনজীবী হিসেবে প্র্যাকটিস করতে তালিকাভুক্তির জন্য এখন প্রিলিমিনারী পরীক্ষা দিতে হবে।
এর আগে হাইকোর্টের সনদের পরীক্ষার ক্ষেত্রে কেবল লিখিত ও মৌখিক পরীক্ষা হতো। এবার এমসিকিউ যুক্ত করা হলো। পাশপাশি হাইকোর্টে তালিকাভুক্তির প্রিলিমিনারী পরীক্ষার ফরম পূরণের তারিখও ঘোষণা করা হয়েছে।
আইনজীবীদের সনদ প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান ও আইন পেশার নিয়ন্ত্রণকারী সংস্থা বাংলাদেশ বার কাউন্সিল গত ৩০শে ডিসেম্বর এই সিদ্ধান্তের কথা জানায়। বার কাউন্সিলের নিজস্ব ওয়েবসাইটেও এ বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়েছে।
বার কাউন্সিলের ভারপ্রাপ্ত সচিব আফজাল-উর রহমান স্বাক্ষরিত বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, পরবর্তী হাইকোর্ট পারমিশন পরীক্ষায় এমসিকিউ যুক্ত করা হয়েছে। পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হলে প্রার্থীকে ১০০ নম্বরের মধ্যে ন্যূনতম ৫০ নম্বর পেতে হবে। প্রিলিমিনারী পরীক্ষা হবে ১ঘণ্টা।
বিজ্ঞপ্তি অনুযায়ী, আইনজীবী সনদপ্রাপ্ত যে সকল এডভোকেটের বৈধ রেজিস্ট্রেশন কার্ড রয়েছে তারা প্রিলিমিনারী পরীক্ষার জন্য ফরম পূরণ করতে পারবেন। এক্ষেত্রে তাদেরকে ১২হাজার টাকা এবং ফরম ফি বাবদ ১হাজার টাকা বার কাউন্সিলের অনুকূলে সংস্থার ব্যাংক হিসাবে জমা দিতে হবে। পাশপাশি প্রয়োজনীয় কাগজপত্র (যেমন- বৈধ রেজিস্ট্রেশন কার্ডের সত্যায়িত কপি, সকল শিক্ষা সনদ ও নম্বরপত্র, বার কাউন্সিল সনদ/প্রভিশনাল সনদ, স্ব-স্ব আইনজীবী সমিতিতে যোগদানের তাখিরসহ সদস্য সনদ, ৫টি দেওয়ানী, ১০টি রিট ও ১০টি ফৌজদারী মামলার তালিকা, সদ্য তোলা ৪কপি পাসপোর্ট সাইজের সত্যায়িত ছবি ইত্যাদি জমা দিতে হবে।
এছাড়া গত লিখিত পরীক্ষায় অনুত্তীর্ণ ও মৌখিক পরীক্ষায় যাদের লিখিত পরীক্ষার ফল বাতিল করা হয়েছে এবং যাদের রেজিস্ট্রেশন কার্ডের মেয়াদ ২০২০ সালের ৩১শে মার্চ পর্যন্ত বহাল থাকবে তারাও প্রিলিমিনারী পরীক্ষায় অংশগ্রহণের জন্য ফরম পূরণ করতে পারবেন। এক্ষেত্রে প্রার্থীকে পরীক্ষার ফি বাবদ ২হাজার টাকা এবং ফরম ফি বাবদ ১হাজার টাকা বার কাউন্সিলের অনুকূলে সংস্থার ব্যাংক হিসাবে জমা দিতে হবে। পাশাপাশি প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জমা দিতে হবে বলেও বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর