বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৬:০১ পূর্বাহ্ন
Logo
সংবাদ শিরোনাম ::
বিশ্বব্যাপী ওমিক্রন সংক্রমণ বৃদ্ধিতে আইসোলেশন মেয়াদ অর্ধেক করার ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট ডেল্টা ও বিটার তুলনায় তিন গুণের বেশী পুনঃ সংক্রমন ঘটাতে পারে : গবেষণা প্রতিবেদন জাতিসংঘ ভবনের বাইরে এক বন্দুকধারী গ্রেফতার শান্তি চুক্তির পঞ্চম বার্ষিকী উপলক্ষে কলম্বিয়া সফর জাতিসংঘ মহাসচিব সশস্ত্র বাহিনী দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে তিন বাহিনীর প্রধানগণের সাক্ষাৎ করোনা ভাইরাসের সংক্রমন বেড়ে যাওয়ায় অস্ট্রিয়ায় লকডাউন করোনা সংক্রমণ বাড়ায় ইউরোপের বিভিন্ন দেশে কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ ভারতে নতুন করে ১০ হাজার ৩০২ জন করোনায় আক্রান্ত নভেম্বর মাসজুড়ে করাঞ্চলে কর মেলার সেবা পাবেন করদাতারা ঔপনিবেশিক আমলের ফৌজদারী কার্যবিধি যুগোপযোগী হচ্ছে

ফরিদপুর জেলার মধুখালী উপজেলার শ্রীপুরে ঐতিহ্যবাহী ঘোড় দৌড় অনুষ্ঠিত

  • আপডেট সময় বৃহস্পতিবার, ১২ এপ্রিল, ২০১৮

॥মাহবুব হোসেন পিয়াল॥ প্রায় দুই যুগ বিরতির পর ফরিদপুরের মধুখালী উপজেলার শ্রীপুর গ্রামের শতবষী বটগাছের নীচে গতকাল ১১ই এপ্রিল থেকে শুরু হয়েছে দুই দিনব্যাপি গ্রামীণ ঐতিহ্যবাহী লোকজ মেলা।
জানাযায়, প্রায় দুই/তিনশ বছর আগে শুরু হয় এ মেলার যাত্রা। মেলার পাশাপাশি চলতো ঘৌড় দৌড় প্রতিযোগিতা। প্রথমে মেলা বসতো গ্রামের কর্মকার পাড়া হতে শুরু করে বড় পুকুর পর্যন্ত। এ গ্রামের বয়ঃবৃদ্ধ ক্ষুদিরাম কর্মকার বলেন, প্রায় ২০০ বছর মেলা চলার পর ৬০/৬২ বছর আগে গ্রামের তখনকার সমাজনেতা রশিদ মোল্যা ও ফাকু মন্ডলের প্রস্তাবের প্রেক্ষিতে মেলার কার্যক্রম বৃহৎ এই বটতলায় হতে শুরু করে। বিগত দুই যুগ আগে শহরের নিকটে আধুনিক আদলে বসানোর পর এ মেলা বন্ধ হয়ে যায়।
এ বছর স্থানীয় সংসদ সদস্য মোঃ আব্দুর রহমান এবং তার সহধর্মিনী বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের ডেপুটি রেজিস্ট্রার ডাঃ মির্জা নাহিদা হোসেন বন্যা এই চিরায়ত গ্রামীণ মেলার পুনর্জীবনের উদ্যোগ গ্রহণ করেন। তাদের প্রচেষ্টায় মধুখালী পৌরসভা ও উপজেলা পরিষদ যৌথভাবে এ মেলার আয়োজন করে।
পৌরসভার মেয়র খোন্দকার মোরশেদুল ইসলাম লিমন, উপজেলা চেয়ারম্যান মোঃ আজিজার মোল্যা, বিল্লাল মোল্যা, তরুণ উদ্যোক্তা কবির মন্ডল, মোস্তফা সরদার প্রমুখকে এ লোকজ সংস্কৃতি উদ্ধারে কাজ করতে দেখা গেছে।
বৃহৎ এ বটগাছের নীচে মেলার পাশাপাশি আছে ঘৌড় দৌড় প্রতিযোগিতা, ঘুড়ি কাটা প্রতিযোগিতা, লাঠিখেলা প্রতিযোগিতা, নাগর দোলা ও পুতুল খেলার আয়োজন। ছবির মত পরিবেশে মেলায় আসা অল্পবয়সীদের উচ্ছাসও চোখে পড়ার মত। বটগাছের ছায়াতলেই বসেছে মৃৎ, কুটির শিল্প ও খাবারের দোকানসহ হরেক রকমের অর্ধশতাধিক দোকান।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর
error: আপনি নিউজ চুরি করছেন, চুরি করতে পারবেন না !!!!!!