বুধবার, ২৯ জুন ২০২২, ১২:১২ অপরাহ্ন
Logo
সংবাদ শিরোনাম ::
বিশ্বব্যাপী ওমিক্রন সংক্রমণ বৃদ্ধিতে আইসোলেশন মেয়াদ অর্ধেক করার ঘোষণা দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র ওমিক্রন ভেরিয়েন্ট ডেল্টা ও বিটার তুলনায় তিন গুণের বেশী পুনঃ সংক্রমন ঘটাতে পারে : গবেষণা প্রতিবেদন জাতিসংঘ ভবনের বাইরে এক বন্দুকধারী গ্রেফতার শান্তি চুক্তির পঞ্চম বার্ষিকী উপলক্ষে কলম্বিয়া সফর জাতিসংঘ মহাসচিব সশস্ত্র বাহিনী দিবস উপলক্ষে রাষ্ট্রপতির সঙ্গে তিন বাহিনীর প্রধানগণের সাক্ষাৎ করোনা ভাইরাসের সংক্রমন বেড়ে যাওয়ায় অস্ট্রিয়ায় লকডাউন করোনা সংক্রমণ বাড়ায় ইউরোপের বিভিন্ন দেশে কঠোর পদক্ষেপ গ্রহণ ভারতে নতুন করে ১০ হাজার ৩০২ জন করোনায় আক্রান্ত নভেম্বর মাসজুড়ে করাঞ্চলে কর মেলার সেবা পাবেন করদাতারা ঔপনিবেশিক আমলের ফৌজদারী কার্যবিধি যুগোপযোগী হচ্ছে

বালুবাহী ট্রাক অবাধে দাপিয়ে চলায় নাগরিক জীবন বিপন্ন॥প্রশাসন নির্বিকার॥সড়কের বেহাল দশা

  • আপডেট সময় সোমবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী, ২০২০

##আইনের প্রয়োগ নেই॥আশ্বাসে মিলছে না প্রতিকার##
অবাধে অতিরিক্ত লোডের বালুবাহী ট্রাক চলাচলের কারণে রাজবাড়ী শহরের হাসপাতাল সড়কসহ অধিকাংশ সড়কগুলো ভেঙ্গে-চুরে এখন বেহাল দশা। বিভিন্ন স্থানে গর্ত-খানাখন্দ হয়ে যাওয়ায় সড়কগুলো এখন মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে। শহরের ২নং রেলগেট থেকে হাসপাতাল সড়কের কয়েকটি পয়েন্টে বিশেষ করে ভারি ট্রাক চলাচলের কারণে পৌরসভার পানির লাইন ফেটে গিয়ে কাদামগ্ন থাকায় সেগুন বাগিচা এলাকায় প্রতিদিনই এভাবেই চাকা ফেঁসে আটকে যাচ্ছে বালুবাহী ট্রাকগুলো। রাতে-দিনে চাকা ফেঁসে ট্রাক আটকে যাওয়ায় ওই সড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ হয়ে ব্যাপক জনদুর্ভোগের সৃষ্টি করছে। এ সড়কে ট্রাক ফেঁসে গেলে বালুবাহী ট্রাকগুলো বেপরোয়া গতিতে বেড়াডাঙ্গা ৩নং সড়ক দিয়ে ঢুকে আসাদ সড়ক দিয়ে হাসপাতাল সড়কে গিয়ে ওঠে। এতে বেড়াডাঙ্গা ৩নং সড়কের পৌরসভা ড্রেন ও সড়ক ভেঙ্গে চুরে মারাত্মকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। বালুবাহী অধিকাংশ ট্রাক ও ড্রাম ট্রাক হেলপার চালানোর কারণে নিয়মিত দুর্ঘটনা ঘটছে। সড়ক ও আবাসিক এলাকার সড়ক দিয়ে দিনে-রাতে একসাথে ৫/৬টি করে ট্রাক বেপরোয়া গতিতে চালাচল করায় এলাকাবাসী ও কোমলমতি শিশু ও শিক্ষার্থীরা দুর্ঘটনার ভয়ে উদ্বেগ ও উৎকণ্ঠার মধ্যে রয়েছে। পাশাপাশি ট্রাকের বিকট হর্ণে ও ট্রাকে থাকা বালু উড়ে পরিবেশ মারাত্মকভাবে দূষণ করছে। পৌর সড়কের বারোটা বাজিয়ে বালু ব্যবসায়ীরা আঙ্গুল ফুলে কলা গাছ হলেও দুর্ভোগসহ দুর্ঘটনার মাধ্যমে খেসারত দিতে হচ্ছে সড়ক দিয়ে চলাচলকারী অন্য যানবাহন ও পৌর নাগরিকদের। পৌর এলাকায় ট্রাক চলাচল বন্ধে জেলার উচ্চ পর্যায়ের বিভিন্ন সভায় পৌরসভা কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় প্রশাসন ব্যবস্থা গ্রহণে আশ্বাস দিলেও রহস্যজনক কারণে আইনের প্রয়োগ নেই এবং মিলছে না প্রতিকার। ছবিটি গতকাল ২৩শে ফেব্রুয়ারী দুপরে সেগুন বাগিচা এলাকা থেকে তোলা -মাতৃকণ্ঠ।

নিউজটি শেয়ার করুন

এই বিভাগের আরো খবর
error: আপনি নিউজ চুরি করছেন, চুরি করতে পারবেন না !!!!!!